Site icon কথ্য

ঘর বাঁধলেন পরম-পিয়া

গত কয়েকদিন ধরেই টালিপাড়ায় কানাঘুষা চলছিলো পরমব্রতের বিয়ে নিয়ে। অবশেষে বিয়ে করে নিজের আইবুড়ো তকমা মুছে দিলেন পরমব্রত চট্টোপাধ্যায় । বিয়ে করেছেন তার বন্ধু স্বাস্থ্যকর্মী পিয়া চক্রবর্তীকে। বিয়ে নিয়ে এত কানাঘুষা চললেও সে নিয়ে কোনো কিছু বলেনি তারা। বিয়ের দিন সন্ধ্যায় নিজের ইনস্টাগ্রামে তাঁর বিয়ের তিনটি ছবি দিয়ে তার বিয়ের ঘটনা প্রকাশ করেন।ক্যাপশনে একটি কবিতার লাইন লিখেন তিনি যার বাংলা অর্থ হলো, ‘ তাহলে চলো তুমি আর আমি,সন্ধ্যা যখন আকাশে ছড়িয়ে পড়ে’। ছবিতে হাস্যোজ্জ্বল ছিলেন তারা দুজন। ঘরোয়া ভাবেই বিয়ের আয়োজন করেছেন তাঁরা। পরমব্রত আনন্দ বাজার পত্রিকা জানিয়েছেন, অনুষ্ঠানে দুই পরিবারের সদস্যরা উপস্থিত ছিলো,পরে বড় করে অনুষ্ঠান করার ইচ্ছা আছে তাদের।
পিয়া চক্রবর্তী ছিলেন অনুপম রয়ের প্রাক্তন স্ত্রী। দীর্ঘ ৬ মাসের সংসার জীবন ছিলো তাদের। ডিভোর্সের দুই বছর পর আবার বিয়ে করলেন পিয়া। তাদের সংসার ভাঙার পেছনে বারবার উঠে এসেছিলো পরমব্রত চক্রবর্তীর নাম কিন্তু এ বিষয়টিকে ভুল বলে পরমব্রত জানিয়েছেন আমরা শুধুই বন্ধু।
সেই ২০২১ সালের বিবাহ বিচ্ছেদ শেষে ২০২৩ সালে আবার ঘর বাধঁলেন পিয়া চক্রবর্তী।
অনুপমের সেই গানের লাইন, ‘তুমি অন্য কারোর সঙ্গে বোধোঁ ঘর’ আজ তার জীবনের সাথেই মিলে গেলো।

Exit mobile version